০৪র্থ খণ্ড (১৯১৯-২৫১০)

০৪র্থ খণ্ড (১৯১৯-২৫১০)

০৪র্থ খণ্ড (১৯১৯-২৫১০)

০৪র্থ খণ্ড (১৯১৯-২৫১০)

০১. ক্রয়-বিক্রয় অধ্যায় (১৯১৯-২০৯৬) (178)

০৫. হাওয়ালা অধ্যায়

বুখারি হাদিস নং ২১৪২ – হাওয়ালা করা। হাওয়ালা করার পর পুনরায় হাওয়াকারীর নিকট দাবী করা যায় কি ?

হাদীস নং ২১৪২

আবদুল্লাহ ইবনে ইউসুফ রহ……….আবু হুরায়রা রা. থেকে বর্ণিত যে, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন : ধনী ব্যক্তির ঋণ পরিশোধে গড়িমসি করা জুলুম। যখন তোমাদের কাউকে (তার জন্য) কোন ধনী ব্যক্তির হাওয়ালা করা হয়, তখন সে যেন তা মেনে নেয়।

০৪র্থ খণ্ড (১৯১৯-২৫১০)

বুখারি হাদিস নং ২১৪৩ – যখন (ঋণ) কোন ধনী ব্যক্তির হাওয়ালা করা হয় তখন (তা মেনে নেওয়ার পর) তার পক্ষে প্রত্যাখ্যান করার ইখতিয়ার নেই।

হাদীস নং ২১৪৩

মুহাম্মদ ইবনে ইউসুফ রহ………আবু হুরায়রা রা. থেকে বর্ণিত যে, নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেন : ধনী ব্যক্তির পক্ষ থেকে ঋণ পরিশোধে গড়িমসি করা জুলুম। যাকে (তার পাওনার জন্য) ধনী ব্যক্তির হাওয়ালা করা হয়, তখন সে যেন তা মেনে নেয়।

০৪র্থ খণ্ড (১৯১৯-২৫১০)

বুখারি হাদিস নং ২১৪৪ – মৃত ব্যক্তির ঋণ কোন জীবিত ব্যক্তির হাওয়ালা করা হলে তা জায়িয।

হাদীস নং ২১৪৪

মাক্কী ইবনে ইবরাহীম রহ………সালামা ইবনে আকওয়া রা. থেকে বর্ণিত যে, তিনি বলেন, একদিন আমরা নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম-এর নিকট বসা ছিলাম, এমন সময় একটি জানাযা উপস্থিত করা হল।

সাহাবীগণ বললেন, আপনি তার জানাযার সালাত আদায় করে দিন। নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বললেন : তার কি কোন ঋণ আছে? তারা বলল, না । তিনি বললেন : সে কি কিছু রেখে গেছে ? তারা বলল, না । তখন তিনি তার জানাযার সালাত আদায় করলেন। তারপর আরেকটি জানাযা উপস্থিত করা হল।

সাহাবীগণ বললেন, ইয়া রাসূলাল্লাহ ! আপনি তার জানাযার সালাত আদায় করে দিন। নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বললেন : তার কি কোন ঋণ আছে? তারা বলল, হ্যাঁ । তিনি বললেন : সে কি কিছু রেখে গেছে ? তারা বলল, তিনটি দীনার। তখন তিনি তার জানাযার সালাত আদায় করলেন।

০৪র্থ খণ্ড (১৯১৯-২৫১০)

তারপর তৃতীয় আরেকটি জানাযা উপস্থিত করা হল। সাহাবীগণ বললেন, আপনি তার জানাযার সালাত আদায় করুন। নবী করীম সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বললেন : তিনি বললেন : সে কি কিছু রেখে গেছে ?

তারা বলল, না। তিনি বললেন : তার কি কোন ঋণ আছে? তারা বলল, তিন দীনার। তিনি বললেন : তোমাদের এ লোকটির সালাত তোমরাই আদায় করে নাও।

আবু কাতাদা রা. বললেন, ইয়া রাসূলাল্লাহ ! তার জানাযার সালাত আদায় করুন, তার ঋণের জন্য আমি দায়ী। তখন তিনি তার জানাযার সালাত আদায় করলেন।

আরও পড়ুনঃ

ইজারা অধ্যায় – সহিহ বুখারী (ইসলামিক ফাউন্ডেশন) – ৪র্থ খণ্ড

সলম অধ্যায় – সহিহ বুখারী (ইসলামিক ফাউন্ডেশন) – ৪র্থ খণ্ড

ই’তিকাফ অধ্যায় – সহিহ বুখারী (ইসলামিক ফাউন্ডেশন) – ৩য় খণ্ড

তারাবীহর সালাত অধ্যায় – সহিহ বুখারী (ইসলামিক ফাউন্ডেশন) – ৩য় খণ্ড

সাওম অধ্যায় – সহিহ বুখারী (ইসলামিক ফাউন্ডেশন) – ৩য় খণ্ড

হাদিসশাস্ত্র (উলুমুল হাদিস)

মন্তব্য করুন